01.06.2018

১৯২৭ সালের সেপ্টেম্বর মাস... কলকাতায় সেদিন অঝোর ধারায় বৃষ্টি চলছে....।  ক্যানিং স্ট্রিট থেকে বেরিয়ে সেন্ট্রাল অ্যাভিনিউ-র ফুটপাথ-এর একটি গাড়ি বারান্দায়  বেশ কিছু পথচলতি মানুষ বৃষ্টি থেকে বাঁচতে দাঁড়িয়েছিলেন...।  গাড়িবারান্দাটির লাগোয়া একটি ডিসপেন্সরি ।   বাইরে নাম লেখা  "ডক্টর রামস্বামী আয়েঙ্গার" । চেম্বারে ভিড় নেই..। সাদা ধুতি..এবং সাদা শার্ট পড়া এক দীর্ঘ-দেহি যুবকও সেই বৃষ্টি থেকে মাথা বাঁচানোর ভিড়ে উপস্থিত । ওই যুবক টি  নিজের মনে গুণ-গুণ করে গান গাইছেন...।  স্যুট প্যান্ট পরা ডক্টর রামস্বামী আয়েঙ্গার গানের ভক্ত..। কলকাতায় নিবাসের সূত্রে বাংলা গান তো বটেই..। তাঁর কানে যেতেই  তিনি একটু বাইরের...

   

   বাংলার মাটির গান তুলে আনলেন সমীর আইচ। সঙ্গে তাঁর দুই বন্ধু প্রাণেশ সোম ও তপন রায়। সামনে বসে প্রবাদপ্রতিম অমর পাল।শিষ্যের কণ্ঠে শুনছেন নিজের শেখানো নিজের গাওয়া এক সময়ের বাংলার আকাশে বাতাসে ভেসে বেড়ানো মন উড়িয়ে নিয়ে যাওয়া গানের ডালি।এমনই এক বিরল মুহূর্তের সাক্ষী থাকলো কলকাতা। আজ বিড়লা একাডেমির প্রেক্ষাগৃহে সন্ধ্যায় শিল্পী সমীর আইচ গাইলেন তাঁর গুরুর গান। নবতিপর অমর পাল জানালেন,এখনো তাঁর হৃদয়জুড়ে সুরের আবেশ,কণ্ঠে তা আর আসে না, এই কষ্টে দিন গুজরান।এখনও ইচ্ছে করে এক তারায় আঙ্গুল দিয়ে বাজাই, বাংলার লোকগীতির বিপুল সম্ভার যে এখনও অধরাই থেকে গেল। ৯৭ তে এসেও এই খেদোক্তি আমাদের অবাক করে।বিড়লা এ...

ভাতৃপ্রতিম সুহৃদ গানের মানুষ পিলু ভট্টাচার্যের ফেবু দেওয়াল থেকে তুলে আনলাম আমার প্রাণপ্রিয় গানওয়ালাকে নিয়ে এই অবিস্মরণীয় ঘোর লাগা গল্পকথা... জর্জ বিশ্বাসের ওই গানের ঘরে হারমোনিয়াম বাজিয়ে তাঁর খোলা গলায় গান শোনা আমার জীবনের অসামান্য প্রাপ্তি! পঁচিশে বৈশাখে প্রিয় মানুষ ও বন্ধুদের পড়তে দিলাম এই জর্জবৃত্তান্ত।

১৯৪৬ সাল ........

কলকাতায় রায়ট। উত্তাল মহানগর। কালীঘাট ট্রাম ডিপোতে লাশের স্তূপ। শুনশান রাসবিহারী। বারুদের হাওয়া কেটে একটা লোক পড়িমড়ি করে ছুটতে ছুটতে গলি দিয়ে ঢুকে পড়ল জর্জের ঘরে। !!!

পার্টিতে যখন মতবিরোধ, সকলের মনে ধোঁয়াশা, সে সময়ের অনেকে তাঁর কাছে আশ্রয় নিয়েছেন।

যুক্তি তক্কো আর গপ্পো’ করছেন ঋত...

10.05.2018

লোকগানের কিংবদন্তী শিল্পী অমর পাল। জন্ম ১৯২২ সালের ১৯ মে, বর্তমান বাংলাদেশের ব্রাহ্মণবাড়িয়াতে। পিতার নাম মহেশ চন্দ্র পাল এবং মাতা হলেন দুর্গাসুন্দরী পাল। স্ত্রী প্রয়াতা পুতুল রাণী পাল । তিনি ৫ পুত্র সন্তানের পিতাও বটে। ১০ বছর বয়েসে পিতাকে হারিয়ে সংসারের দায়ভার কাঁধে তুলে নিয়েও গান পাগল অমর পাল মা দুর্গাসুন্দরী দেবীর কাছেই লোকসংগীতের শিক্ষা শুরু করে দেন। পাশাপাশি উচ্চাঙ্গ সংগীতের তালিম নেন শ্রদ্ধেয় ওস্তাদ আলাউদ্দীন খাঁ সাহেবের ছোট ভাই জনাব আয়েৎ আলী খাঁ সাহেবের কাছে। কুমিল্লার ব্রাহ্মণবাড়িয়া থেকে ১৯৪৮ সালে আকাশবাণীর গীতিকার শচীন্দ্র নাথ ভট্টাচার্যের সাথে কলকাতায় আসেন। কলকাতায় আসার পর বেঙ্গল মিউজ...

আগামী ২৩, ২৪ এবং ২৫শে  জুন কোলকাতার উত্তমমঞ্চে তিনদিন ব্যাপী রবীন্দ্র সম্মেলন অনুষ্ঠিত হতে চলেছে। আয়োজক ডাকঘর। প্রথম পর্যায়ে ২৩শে জুন অনুষ্ঠিত হবে বিশিষ্ট রবীন্দ্রসঙ্গীত শিল্পী মনোজমূরলী নায়ার এবং বিশিষ্ট কোরিয়ান অপেরা গায়িকা মিরইয়াং হলের যৌথ নিবেদন। কোলকাতার ইউ এস কনস্যুলেট জেনারেল ক্রেইগ হলের স্ত্রী মিরইয়াং ছোটবেলা থেকেই সঙ্গীতচর্চা করেন। স্বামীর কর্মসূত্রে কোলকাতায় আসা। এখানে এসেই তিনি রবীন্দ্রসঙ্গীতের বিশেষ অনুরাগী হয়ে পড়েন। পরবর্তীতে রাজভবনে রাজ্যপালের সম্মানে অনুষ্ঠিত একটি বিশেষ অনুষ্ঠানে শ্রী নায়ারের সাথে জুটি বেঁধে রবীন্দ্রসঙ্গীত পরিবেশন করেন। ২৩ তারিখের এই অনুষ্ঠানটি ছাড়াও সম্মেলনের অ...

Please reload

সঙ্গীত :
প্রস্তাবিত তালিকা
Please reload

সাম্প্রতিক পোস্ট
Please reload

A N  O N L I N E  M A G A Z I N E 

Copyright © 2016-2019 Bodh. All rights reserved.

For reprint rights contact: bodhmag@gmail.com

Designed, Developed & Maintained by: Debayan Mukherjee

Contact: +91 98046 04998  |  Mail: questforcreation@gmail.com